• Hillbd newsletter page
  • Hillbd rss page
  • Hillbd twitter page
  • Hillbd facebook page
সর্বশেষ
জুরাছড়িতে সেনা বাহিনীর উদ্যোগে শিক্ষা সহায়তা প্রদান                    খাগড়াছড়িতে সেফটিক ট্যাঙ্ক পরিস্কার করতে নেমে দুই শ্রমিকের মৃত্যু                    দীঘিনালার সাংবাদিক পলাশ বড়ুয়া’র পিতৃবিয়োগ                    দুই ত্রিপুরা কিশোরীর হত্যাকারীদের শাস্তির দাবিতে ঢাকায় মানববন্ধন ও সমাবেশ                    লামায় সপ্তম শ্রেণীর এক ছাত্রী ৫ দিন ধরে নিখোঁজ                    কাপ্তাইয়ে বিজিবির ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত                    কাপ্তাইয়ে রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির পক্ষ থেকে ৩৪ পরিবারকে আর্থিক সহায়তা প্রদান                    রাঙামাটিতে কৃষকদের সহজলভ্য ঋনের সেবা পেতে ব্যাংক প্রধানদের সাথে পরামর্শক কর্মশালা                    খাগড়াছড়িতে অবিস্ফোরিত আতশবাজিতে শিশু দগ্ধ                    খাগড়াছড়িতে দুগ্রুপের গোলাগুলি বিনিময়, সন্ত্রাসীদের ধরতে যৌথ বাহিনীর অভিযান                    দীঘিনালায় দুর্বৃত্তের গুলিতে ইউপিডিএফ’র সাবেক কর্মী নিহত                    আলীকদমে শিশু ও নারী উন্নয়নে ওরিয়েন্টেশন কর্মশালা                    লামায় বেইলি ব্রীজের পাটাতন ভেঙ্গে যাওয়ায় দুর্ভোগ চরমে                    মাইসছড়ি ইউনিয়ন পরিষদের উন্মুক্ত বাজেট ঘোষনা                    রাজস্থলী উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ওয়াই-ফাই সেবা প্রদান                    উপকার ভোগীদের সরকারী ও প্রাইভেট সেক্টরের উন্নয়ন সেবা সহজলভ্য করতে রাঙামাটিতে কর্মশালা                    লংগদুতে মাস ব্যাপি ক্রিকেট প্রশিক্ষনের সনদ পত্র বিতরণ                    সীতাকুন্ডে দুই কিশোরীর হত্যায় জড়িতদের শাস্তির দাবীতে রাঙামাটিতে মানববন্ধন                    নাইক্ষ্যংছড়িতে মাটি চাপায় নারী শ্রমিকসহ নিহত ৪, আহত ১                    পাহাড়ে আবারও রক্তের হোলি খেলা শুরু হয়েছে-উষাতন তালুকদারএমপি                    পানছড়ি বাজারে ক্রেতাদের অনুপস্থিতি কোটি টাকার লোকসানে ব্যবসায়ীরা                    
 

আলীকদমে অবৈধভাবে পাথর উত্তোলন চলছে, বিভিন্ন স্থানে মজুদ লক্ষাধিক ঘনফুট পাথর

Published: 19 Dec 2017   Tuesday

বান্দরবান জেলা প্রশাসকের কোন রকম অনুমতি ছাড়া বান্দরবানের আলীকদম উপজেলার বিভিন্ন স্থান থেকে প্রতিদিন হাজার হাজার ঘনফুট পাথর অবৈধভাবে উত্তোলন করে পাচর করে দিচ্ছে পাচারকারী একটি চক্র৷ এ চক্রটি পাহাড় কেটে আর মাটি খুঁড়ে এসব পাথর উত্তোলন করছে৷ অবৈধভাবে পাথর উত্তোলন করার অপরাধে গেল ছয় মাসে আলীকদম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ নায়িরুজ্জামান ভ্রাম্যমান অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন স্থান থেকে ৪৬৭৮০ ঘনফুট পাথর জব্দ করেছেন৷

 

এদিকে আলীকদম উপজেলা প্রশাসন শুরু থেকে অবৈধভাবে পাথর জব্দের অভিযান অব্যাহত রাখলেও বর্তমানে তা বন্ধ থাকায় পাথর পাচারকারীরা বেপরোয়া উঠে প্রকাশ্যে পাথর উত্তোলন করে পাচার করে দিচ্ছে৷


এ বিষয়ে আলীকদম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ নায়িরুজ্জামান বলেন, আলীকদম উপজেলার ২৮৭নং তৈন মৌজার ছোট ভরি, বর ভরি, ঠান্ডাঝিরি, মাংগুঝিরির শাখা প্রশাখা থেকে পাথর উত্তোলনের জন্য গত ৫ ডিসেম্বর বান্দরবান জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে হুমায়ুন কবির, পিতা- মৃত মাওলানা মোহাম্মদ ইসলাম এর নামে ২০ হাজার ঘনফুটের একটি পারমিট অনুমোদন হয়৷ কিন্ত উক্ত পারমিটের অনুবলে পাথর গুলো পরিবহনের কোন অনুমোদন নেই৷ তাই উক্ত পারমিটের কোন পাথর উল্লেখিত স্থান থেকে পরিবহন করা সম্পূর্ণ অবৈধ৷ সেহেতু আলীকদম উপজেলার যে কোন স্থান থেকে পাথর উত্তোলন করা সম্পূর্ণ অবৈধ৷ অবৈধভাবে পাথর উত্তোলন করার অপরাধে গত ছয় মাসে আলীকদমের বিভিন্ন স্থানে ভ্রাম্যমান অভিযান চালিয়ে ৪৬৭৮০ ঘনফুট পাথর জব্দ করা হয়েছে৷ অভিযান অব্যাহত রয়েছে৷


আলীকদম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ নায়িরুজ্জামান আলীকদম উপজেলা থেকে পাথর উত্তোলন সম্পূর্ণ অবৈধ বলে জানালেও বর্তমানে উপজেলার ভরিখাল, কলারঝিরি, রোয়াম্ভু খাল, আলীকদম-থানচি সড়কের আলীকদম অংশের ১০ থেকে ১৮ কিলোমিটার পর্যন্ত বিভিন্ন ঝিরি থেকে, মাতামুহুরী রিজার্ভের ধুমচি খাল, ভূজিখাল, তুলাতলী ঝিরি, চৈক্ষ্যংয়ের ডুপ্পুর ঝিরি, পাট্টাখাইয়া, বাঘের ঝিরি ও তৈন খালের এবং অসথু ত্রিপুরা পাড়া ঘাট এলাকা থেকে প্রতিদিন হাজার হাজার ঘনফুট পাথর উত্তোলন করছে এ পাথর উত্তোলনকারী চক্র৷ এসব স্থানে রাস্তার পাশে স্তুপে স্তুপে জড়ো করে রেখেছে পাথর৷ এ সব পাথর গুলো ছোট-বড় ট্রাক যোগে পাচার করে দিচ্ছে৷ এর কারণে যেমন পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট হচ্ছে তেমনি রাজস্ব থেকে বঞ্চিত হচ্ছে সরকর৷

 

একাধিক সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ২৯১ ও ২৯২ নং তৈন মৌজার এলাকার পাইয়া পাড়ার বাসিন্দা চংঅং ম্রো বলেন, গত ১ বছর ধরে তৈন খালের বিভিন্ন স্থান থেকে পাথর উত্তোলন করে চলছে উপজেলা সদরের প্রভাবশালী কিছু লোকজন৷ পাথর উত্তোলনের কারণে আমরা বসবাসকারী ম্রো, ত্রিপুরা ও মার্মা সম্প্রদয়ের লোকজনের বিভিন্ন রকম সমস্যা হচ্ছে৷ তদের বাধা দিলে তারা বাধা শুনে না৷ উল্টা অপমান জনক কথা কলে৷ তারা ইঞ্জিন চালিত নৌকায় করে প্রতিদিন প্রায় ৮০ থেকে ১শত বোট পাথ বোঝাই করে আলীকদম সদরে নিয়ে যায়৷ বিভিন্ন স্থানে মজুদ করেছে লক্ষাধিক ঘনফুট পাথর। প্রশাসন অভিযান চালালেই পাথর গুলো জব্দ করা সম্ভব হবে।


এদিকে চৈক্ষ্যং ইউনিয়নের বাঘের ঝিরি, ডুপ্পুর ঝিরি এলাকা ১, ২ ও ৩নং ওয়ার্ডের মেম্বার আয়েশা আক্তার জানান, ইউনিয়নের বাঘের ঝিরি আর ডুপ্পুর ঝিরি থেকে চৈক্ষ্যং এলাকার কিছু লোক প্রতিনিয়ত পাথর পাচার করে নিয়ে যাচ্ছে৷ এ কারণে আবাসিক থেকে পাট্টাখাইয়া ব্রিক সলিনের রাস্তাটি ভেঙ্গে যাচ্ছে৷ এলাকাবাসীর চলাচলের ভীষণ অসুবিধা হচ্ছে বিধায় আমি কয়েকবার পাথর বোঝাই ট্রাক আটক করি৷ তবুও তারা কথা শুনে না৷ তারা অনেক বেশি বেপরোয়া৷ কথা বলতে ভয় হয়৷ আমি এ বিষয়ে চেয়ারম্যানকে অবহিত করেছি৷


সেখানকার পাট্টাখাইয়া এলাকার দোকানদার মোঃ বেলাল উদ্দিনের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান, বাঘের ঝিরির আগা থেকে ট্রাক যোগে পাট্টাখাইয়া রাস্তা দিয়ে পাথর পরিবহনের কারণে রাস্তাটি ভেঙ্গে যাচ্ছে৷ এলাকার মেম্বারদের আমরা জানিয়েছি৷ এ রাস্তা দিয়ে প্রতিদিন ৫০ থেকে ৬০টি পাথর বোঝাই করে নিয়ে যায়৷ গাড়ীর আওয়াজে পাড়ার কেই ঘুমাতে পারেনা৷ এ এলাকার বিভিন্ন স্থানে হাজার হাজার ঘনফুট জড়ো করে রেখেছে।


পাথর উত্তোলনকারী মোঃ রুকন মাষ্টার, মোঃ হুমায়ুন কবির, জাহেদ মিস্ত্রি ও বাতেন মাষ্টার এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা বলেন, আমরা প্রশাসনকে ম্যানেজ করে পুঁজি খাটিয়ে পাথর উত্তোলনের মাধ্যমে ব্যবসা করছি৷ আমরা চুরি করছি না৷


এ বিষয়ে পরিবেশ অধিদপ্তর চট্টগ্রাম অঞ্চলের পরিচালক মোঃ মকবুল হোসেনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, পাথর উত্তোলনের ফলে পাহাড় ধস, পানির জলাধার নষ্ট ও প্রাকৃতিকভাবে বিপর্যয় হতে পারে৷ আলীকদমে পাথর উত্তোলন বন্ধের বিষয়ে আমি বান্দরবান জেলা প্রশাসকের সাথে কথা বলেছি৷ জেলা প্রশাসক ও স্থানীয় প্রশাসন পাথর উত্তোলন ও পাচার চাইলেই বন্ধ করতে পারে৷


এ ব্যাপারে বান্দরবান জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বণিক বলেন, আলীকদমে অবৈধ ভাবে পাথর উত্তোলনের বিষয়ে দ্রুত আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে৷ আলীকদমে পাথর উত্তোলনে কোন অনুমতি দেওয়া হয়েছে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, পাথর উত্তোলনে কাউকে এখনো পর্যন্ত অনুমতি দেয়া হয়নি৷
--হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

 

 

আর্কাইভ