• Hillbd newsletter page
  • Hillbd rss page
  • Hillbd twitter page
  • Hillbd facebook page
সর্বশেষ
রাঙামাটির বিশিষ্ট ব্যবসায়ী এজাজ নবীর মায়ের ইন্তেকাল                    বাঘাইছড়িতে দুলামিয়া এন্ড সাবা ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনের শীতবস্ত্র বিতরণ                    লামায় মেয়ে হত্যার বিচার চেয়ে সংবাদ সম্মেলন ৮৫ বছরের এক বৃদ্ধ মায়ের                    পাহাড়ে সব অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার করা হবে -পার্বত্যমন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈচিং এমপি                    খাগড়াছড়ির শতাধিক দরিদ্র শীতার্থ মানুষের পাশে যুবনেতা লক্ষ্মী চাকমা                    অটিস্টিক শিশুদের প্রতিভাগুলো খুঁজে বের করতে হবে এবং প্রতিভার বিকাশ ঘটাতে হবে-নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা                    মহালছড়ি মিলনপুর বনবিহারে মাস ব্যাপী আকাশ প্রদীপ প্রজ্জ্বলন অনুষ্ঠান সমাপ্ত                    নানিয়ারচর উপজেলাবাসীর প্রথম সার্বজনীন মহাসংঘদান অনুষ্ঠিত                    রাঙামাটিতে বৌদ্ধ মৈত্রী সংঘের ২০ বছর পূর্তিতে গুনী ব্যক্তি সন্মাননা ও বিভিন্ন ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানকে শ্রদ্ধাদান                    মহালছড়িতে ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস উদযাপন                    বরকলে নলকূপ তত্ত্বাবধায়ক প্রশিক্ষণার্থীদের সমাপনী সভা অনুষ্ঠিত                    বরকলে ৪৫বিজিবির দেওয়া সমবায় গরু খামার প্রকল্পের শুভ উদ্ধোধন                    রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সেলাই মেশিন বিতরণ                    খাগড়াছড়িতে ডিজিটাল দিবসে র‌্যালি ও আলোচনা সভা                    রাঙামাটির রাজ বন বিহারে বংসা-ওয়াংসা গোঝার সার্বজনীন সংঘ দান অনুষ্ঠানের আয়োজন                    খাগড়াছড়িতে পার্বত্য নাগরিক পরিষদের সংবাদ সম্মেলন                    মহালছড়িতে লীন প্রকল্পের অবহিতকরণ সভা                    পার্বত্য ভিক্ষু সংঘের তৃতীয় সংঘরাজ অভয়তিষ্য মহাথেরোর অন্ত্যোষ্টিক্রিয়া সম্পন্ন                    সড়ক উন্নয়নে মৈদং ইউনিয়নের চল্লিশ দিনের কর্মসূচী                    মহালছড়িতে রহমান স্মৃতি ফুটবল টুর্ণামেন্ট`র ফাইনাল খেলা ও পুরষ্কার বিতরণ অনুষ্ঠান সম্পন্ন                    উপার্জনক্ষম একমাত্র সন্তানের জামিন চেয়ে রাঙামাটিতে বৃদ্ধ পিতা-মাতার সংবাদ সম্মেলন                    
 

রাঙামাটিতে পার্বত্য চট্টগ্রাম ভূমি বিরোধ নিস্পত্তি কমিশনের বৈঠক অনুষ্ঠিত
পার্বত্য ভূমি বিরোধ নিস্পত্তি কমিশনে জমা পড়া আবেদনের বাছাই করে শীঘ্রই শুনানী শুরু হবে

স্টাফ রিপোর্টার : হিলবিডি টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published: 27 Nov 2019   Wednesday

পার্বত্য চট্টগ্রাম ভূমি বিরোধ নিস্পত্তি কমিশনের চেয়ারম্যান ও অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি মোহাম্মদ আনোয়ার উল হক বলেছেন ভূমি বিরোধ সংক্রান্ত জমা পড়া আবেদনগুলো যাছাই-বাছাই করে খুব শিগগিরই শুনানী শুরু করা হবে। তিনি আরো বলেন, খাগড়াছড়িতে কমিশনের প্রধান কার্যালয় হলেও কমিশনের কাজের সুবিধার্থে রাঙামাটিতে নতুন শাখা অফিস খোলার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের কার্যালয় থেকে একটি কক্ষ ভাড়া নেয়া হয়েছে। আগামী ২৩ ডিসেম্বর কমিশনের পরবর্তী বৈঠক সেখানে অনুষ্ঠিত হবে।


বুধবার রাঙামাটিতে পার্বত্য চট্টগ্রাম ভূমি বিরোধ নিস্পত্তি কমিশনের (ল্যান্ড কমিশন) বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা জানান।


রাঙামাটি সাকির্ট হাউসে অনুষ্ঠিত ঘন্টাব্যাপী বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন ভূমি কমিশনের চেয়ারম্যান বিচারপতি মোহাম্মদ আনোয়ার উল হক। এসময় কমিশনের সদস্য ও পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদ চেয়ারম্যান জ্যোতিরিন্দ্র বোধিপ্রিয় লারমা ওরফে সন্তু লারমা, রাঙামাটি সার্কেল চীফ রাজা ব্যারিষ্টার দেবাশীষ রায়,রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষকেতু চাকমা উপস্থিত ছিলেন। বৈঠক শেষে কমিশনের সদস্যরা রাঙামাটি জেলা পরিষদ কার্যালয়ে কমিশনের নতুন শাখা অফিস পরিদর্শন যান কমিশনের চেয়ারম্যানসহ অন্যান্য সদস্যরা।


কমিশনের অন্যতম সদস্য ও পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদ চেয়ারম্যান সন্তু লারমা পার্বত্য চট্টগ্রামে ভূমি নিয়ে অনেক অনেক জটিলতা থেকেই গেছে উল্লেখ সাংবাদিকদের বলেন,পার্বত্য চট্টগ্রামে ভূমি জটিলতা নিয়ে এখানকার প্রশাসন আইন-শৃংখলা উন্নয়ন ও এখানকার মানুষের জীবনধারাসহ কিছুই জড়িত রয়েছে। পার্বত্য চুক্তির ২২ বছর অতিবাহিত হলেও ভূমি ও ভূমি ব্যবস্থপনা বিষয়টি এখনো জেলা পরিষদের কাছে হস্তান্তর করেনি।


তিনি আরো জানান, এসব জটিলতার মধ্যেও ভূমি কমিশন চেষ্টা রাখবে কিভাবে ভুমির সংশ্লিষ্ট বিষয়গুলো নিয়ে একটা সুষ্ঠ সমাধান দেয়া যায়।


কমিশনের অপর গুরুত্বপূর্ন সদস্য ও রাঙামাটি সার্কেল চীফ রাজা ব্যারিষ্টার দেবাশীষ রায় জানান, ভূমি সংক্রান্ত বিভিন্ন জটিলতা, ব্যাপকতা ও প্রেক্ষাপটগুলোর ব্যাপারে ভূমি কমিশনের সদস্যদের মধ্যে বোঝাপোড়া দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। আশা করছি ন্যায় ও নায্য সমাধান দিতে পারবো এবং চেষ্টা করছি দ্রুত শুনানীতে পৌছানোর জন্য। এছাড়া ভূমি কমিশনের বিধিমালা রয়েছে যা এখন মন্ত্রনালয়ে চলমান রয়েছে সে ব্যাপারে পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের পক্ষ থেকে দেয়া সমস্ত সুপারিশ ও পরামর্শ সরকার গ্রহন করে বিধিমালা তৈরী করবে যা কমিশনের কাজ সুবিধা হবে।


ভূমি বিরোধ নিষ্পত্তির ব্যাপারে নায্য সমাধান দিতে পারবো আশা ব্যক্ত করে আরো জানান, এ ব্যাপারে কেউই একশ ভাগের একশভাগ খুশি হবে না। একটি না একটি অখুশী থাকবে। তবে আশাবাদী যে কমিশনের কাজ কিছুটা করতে পারবো। এর ফলে বাংলাদেশের পার্বত্য চট্টগ্রামের নয় পৃথিবীর মধ্যে একটি নজির হতে পারি। যা কিনা কোন উকিল, দেওয়ানী কার্যবিধি ও জটিল আইনী বিষয় ছাড়া বিচার দেয়া যায় ও সুবিচার পাওয়া যায়।
--হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

এই বিভাগের সর্বশেষ
আর্কাইভ