• Hillbd newsletter page
  • Hillbd rss page
  • Hillbd twitter page
  • Hillbd facebook page
সর্বশেষ
পার্বত্য এলাকায় মোনঘর প্রতিষ্ঠানটি একটি বাতিঘর-দীপংকর তালুকদার এমপি                    সুভাষ চাকমা সভাপতি, পিন্টু চাকমা সাধারণ সম্পাদক ও ক্লিন চাকমা সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত                    চন্দ্রঘোনায় শিক্ষক-শিক্ষিকাদের নিয়ে আরএইচস্টেপের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত                    পানছড়িতে পৌনে নয় কোটি টাকার প্রকল্প নেওয়া হয়েছে--বাসন্তী চাকমা এমপি                    রাঙামাটিতে পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকায় পানীয় জলের উৎস উন্নয়নের লক্ষ্যে জেলা পর্যায়ে এ্যাডভোকেসী সভা                    পার্বত্যাঞ্চলের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীদের মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করতে সরকার কাজ করে যাচ্ছে                    রাঙামাটি প্রাণীসম্পদ দপ্তরে জেলা পরিষদের অর্থায়নে ভেটেরিনারি ঔষুধ বিতরণ                    রাঙামাটি পৌরসভার ভারপ্রাপ্ত মেয়রের দায়িত্ব পেলেন জামাল উদ্দিন                    পানছড়িতে ইপসা ‘শো’ প্রকল্পের পুরস্কার বিতরণ ও সম্মাননা প্রদান                    বাঘাইছড়িতে দুর্বৃত্তদের গুলিতে এমএন লারমা গ্রুপের জনসংহতি সমিতির দুই কর্মী নিহত                    রাঙামাটিতে অ্যাকটিভ মাদার্স ফোরাম এর ভূমিকা ও করণীয় শীর্ষক কর্মশালা                    রাঙামাটিতে ৫৮ শতক জমির মালিকানা নিয়ে দুই দেওয়ানের পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন                    রাঙামাটিতে ধুমপান করার দায়ে ৬ব্যক্তিকে জরিমানা                    রুমা থেকে ৬ গ্রামবাসীকে অপহরণ করেছে দুর্বৃত্তরা                    রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের সাথে গুর্খা সম্প্রদায়ের সৌজন্য সাক্ষাৎ                    বিলাইছড়িতে বেতের ঝুড়ি ও পুঁতির শোপিস তৈরি প্রশিক্ষণ শুরু                    বিলাইছড়িতে মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ প্রতিরোধ কর্মশালা                    কাপ্তাইয়ে বঙ্গবন্ধু অনুর্ধ্ব ১৭ ফুটবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন কাপ্তাই ইউনিয়ন পরিষদ                    ভূমি দখলদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নিলে মঙ্গলবার রাঙামাটিতে সড়ক অবরোধ                    ভুমি বিরোধ নিয়ে রাঙামাটি শহরের কলেজ গেটে উত্তেজনা                    যুগান্তরের রাঙামাটি প্রতিনিধি মা’য়ের পরলোগমন                    
 

দুমাস পর রাঙামাটির পর্যটনের ঝুলন্ত সেতু খুলে দেয়া হয়েছে

বিশেষ রিপোর্টার : হিলবিডি টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published: 21 Nov 2016   Monday

প্রায় দুই মাস বন্ধ থাকার পর পর্যটকদের জন্য খুলে দেয়া হয়েছে রাঙামাটি পর্যটনের আকর্ষনীয় ঝুলন্ত সেতু। পানিতে ডুবে থাকা সেতুর উপর থেকে পানি নেমে যাওয়ায় পর্যটন কর্তৃপক্ষ ঝুলন্ত সেতু পুণরায় খুলে দেয়। ফলে প্রাণ ফিরে পেতে শুরু করেছে রাঙামাটির সরকারী পর্যটন স্পট এলাকা।


রাঙামাটি সরকারী পর্যটন কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি বর্ষা মৌসুমে টানা বর্ষনে কাপ্তাই হ্রদের পানির উচ্চতা অস্বাভাবিক বৃদ্ধির কারণে গেল ১৮ সেপ্টেম্বর রাঙামাটির সিম্বল পর্যটন ঝুলন্ত সেতুটি পানিতে তলিয়ে যায়। এতে পর্যটন কর্তৃপক্ষ ঝুলন্ত সেতুর উপর দিয়ে পর্যটকদের নিরাপত্তার স্বার্থকে বিবেচনা করে পারাপারের জন্য বন্ধ করে দেয়। ফলে রাঙামাটিতে বেড়াতে পর্যটকরা এ ঝুলন্ত সেতুটির সৌন্দর্য উপভোগ করতে পারেননি।

 

তবে কাপ্তাই হ্রদের পানির উচ্চতা কমে যাওয়ায় পর্যটন ঝুলন্ত সেতুটি প্রায় দুই মাস পানিতে ডুবে থাকার পর গেল রোববার থেকে সেতুর উপর দিয়ে পর্যটকদের পাারাপারের জন্য উন্মুক্ত করে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। ঝুলন্ত সেতুটি পানিতে ডুবে থাকায় সেতুর অনেক পাটাতন নষ্ট হয়ে গেছে। ইতোমধ্যে সেতুর ক্ষতিগ্রস্থ পাটাতনগুলোর সংস্কারের কাজও প্রায় শেষ পর্যায়ে রয়েছে। আসন্ন পর্যটন মৌসুমে রাঙামাটিতে পর্যটকরা নিবিঘ্নে ঝুলন্ত সেতুর উপর দাড়িঁয়ে সৌন্দর্য্য উপভোগ করতে পারবেন এবং পর্যটনের আয়ের মুখ দেখবে বলে আশা করছেন পর্যটন সংশ্লিষ্টরা।


এদিকে, সোমবার সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, প্রায় দুই মাস সেতুর উপর দিয়ে পারাপার বন্ধ থাকার পর উন্মুক্ত করে দেওয়ায় দেশী-বিদেশী পর্যটকদের উপস্থিতিও বাড়তে শুরু করেছে। সেখানে একদল বিদেশী পর্যটক পর্যটন সেতুর সৌন্দর্য্য উপভোগ করছেন। তবে দীর্ঘ দিন ধরে সেতুটি পানিতে ডুবে থাকায় সেতুর যেসব পাটাতন নষ্ট হয়েছে সেগুলোরও মেরামতের কাজ করতে দেখা গেছে।


রাঙামাটি সরকারী পর্যটন কমপ্লেক্সের ব্যবস্থাপক আলোক বিকাশ চাকমা জানান, গেল রোববার থেকে সেতুর উপর দিয়ে পর্যটকদের পারাপার খুলে দেয়া হয়েছে। তবে দীর্ঘ দিন ধরে পানিতে ডুবে থাকার ঝুলন্ত সেতুর অনেক পাটাতন নষ্ট হয়েছে। সেগুলো ইতোমধ্যে মেরামতের কাজ প্রায় শেষ হয়েছে। আশা করা যাচ্ছে আসন্ন পর্যটন মৌসুমে রাঙামাটিতে পর্যটকরা নিরাপদে পারাপার  ঝুলন্ত সেতু অপরুপ সৌন্দর্য্য উপভোগ করতে পারবেন।


উল্লেখ্য, ৭০ দশকের শেষের দিকে সরকার রাঙামাটি জেলাকে পর্যটন এলাকা হিসেবে ঘোষনা করে। ১৯৮৪ সালের দিকে পর্যটন কর্পোরেশন পর্যটকদের সুবিধার্থে ও মনোরঞ্জনের জন্য দুই পাহাড়ের মাঝখানে তৈরী করে এই আকর্ষনীয় ঝুলন্ত সেতুটি। এ ঝুলন্ত সেতুর পূর্বের দিকে তাকালে দেখা মিলে অপূর্ব স্বচ্ছ জলরাশিসহ ছোটবড় বিস্তৃর্ণ নৈসর্গিক সবুজ পাহাড়।
--হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

আর্কাইভ